আজ- মঙ্গলবার, ১২ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৭শে জুলাই, ২০২১ ইং

পিরোজপুরের এসপি হায়াতের বিদায়ে গণ মানুষের শ্রদ্ধা

গণ মানুষের ভালোবাসায় বিদায় নিলেন পিরোজপুরের পুলিশ সুপার হায়াতুল ইসলাম খান। আজ শনিবার সকালে জেলা পুলিশ লাইনস এ বিদায়ী পুলিশ সুপার হায়াতুল ইসলাম খানকে বিদায় জানাতে তার সহকর্মীদের পাশাপাশি সাংবাদিক ও বিভিন্ন শ্রেণীপেশার মানুষের এসে ভীড় জমায়। এসময় বিদায়ী পুলিশ সুপারের ফুল দিয়ে সাজানো গাড়িটি দড়ি দিয়ে বেঁধে হাতে হাতে টেনে নিয়ে বিদায় দেন তার সহকর্মীরা। এসময় বিদায়ী পুলিশ সুপার ও তার সহকর্মীদের অশ্রুসিক্ত নয়নে নজরদারী পরিবেশকে অনেকটা ভারী করে তোলে।

এর আগে বিদায়ী পুলিশ সুপার হায়াতুল ইসলাম খান ও সহধর্মীনীকে ফুল ও ক্রেষ্ট দিয়ে সন্মাননা জনায় পিরোজপুর প্রেসক্লাব, পিরোজপুর টেলিভিশন জার্নালিষ্ট এ্যাসোসিয়েশন, পিরোজপুর অনলাইন জার্নালিষ্ট এ্যাসোসিয়েশন, পিরোজপুর রিপোর্টার্স ইউনিটির নেতৃবৃন্দ। এ সময় উপস্থিত ছিলেন পিরোজপুর প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি মুনরুজ্জামান নাসিম, সাবেক সাধারণ সম্পাদক ফসিউল ইসলাম বাচ্চু, পিরোজপুর অনলাইন জার্নালিষ্ট এ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি খালিদ আবু, পিরোজপুর টেলিভিশন জার্নালিষ্ট এ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক এস এম তানভীর আহম্মেদ, প্রেসক্লাবের এডহক কমিটির অন্যতম সদস্য হাসিবুল ইসলাম হাসান, পিরোজপুর রিপোর্টার্স ইউনিটির সাধারণ সম্পাদক কুমার শুভ রায়, পিরোজপুর অনলাইন জার্নালিষ্ট এ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক মো: তামিম সরদার, দপ্তর সম্পাদক রেজওয়ান ইসলাম সাজন, কোষাধ্যক্ষ মো: আবির হাসান, শিক্ষা ও গবেষনা সম্পাদক ফেরদৌস রহমান, কার্যনির্বাহী সদস্য এম এ মুন্না প্রমুখ।

এছাড়াও বিদায়ী পুলিশ সুপারকে শ্রদ্ধা জানান বিভিন্ন সামাজিক, রাজনৈতিক ও সাংস্কুতিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ। বদলিকৃত পিরোজপুর পুলিশ সুপার হায়াতুল ইসলাম খান ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের উপ-কমিশনার (ডিএমপি) পদে যোগদান করবে।

অন্যদিকে পিরোজপুর জেলার নবাগত পুলিশ সুপার হিসাবে যোগ দিয়েছেন মোহাম্মদ সাইদুর রহমান পিপিএম। এর আগে তিনি চট্টগ্রাম রেঞ্জ অফিস ডিআইজি কার্যালয়ে এসপি হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। রোববার (১১ জুলাই) রাষ্ট্রপতির আদেশক্রমে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের উপ-সচিব ধনঞ্জয় কুমার দাস স্বাক্ষরিত এক আদেশে তাকে বদলি করা হয়। মাদারিপুরের সন্তান মোহাম্মদ সাইদুর রহমান বাংলাদেশ সিভিল সার্ভিস (বিসিএস) ২৫তম ব্যাচে পুলিশ ক্যাডারে যোগ দেন। সর্বশেষ বৈশ্বিক মহামারি করোনা সংকটকালে তিনি চট্টগ্রাম রেঞ্জ কার্যালয় পুলিশ সুপার (টিএম, আই এবং রোহিঙ্গা শরণার্থী) পদে কমর্রত অবস্থায় মানুষের বিপদে পাশে থেকে ‘সুপার হিরো’ খ্যাতি অর্জন করেন। তিনি মাদারিপুর জেলার সদর উপজেলার পেয়ারপুর গ্রামের মোহাম্মদ এবাদত খান ও রিজিয়া বেগম দম্পতির সন্তান।

 

বিভাগ: অন্যান্য,জাতীয়,টপ নিউজ,তথ্য প্রযুক্তি,ফিচার,বরিশাল বিভাগ,ব্রেকিং নিউজ,মিডিয়া,লাইফ স্টাইল,শিক্ষাঙ্গন,সারাদেশ

আপনার মতামত দিন

Your email address will not be published.