আজ- শনিবার, ১৬ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ১লা অক্টোবর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

পিরোজপুরের ইন্দুরকানীতে নারী নেত্রীর পা ভেঙ্গে দেয়ায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সম্পাদকের বিরুদ্ধে মামলা

পিরোজপুরের ইন্দুরকানীতে আওয়ামী লীগের নারী নেত্রী সেলিনা বেগমের দুই পা পিটিয়ে  ভেঙ্গে দেয়ায় উপজেলা আওয়ামীলীগের সেক্রেটারী মনিরুজ্জামান মৃধাসহ ১৪ জনের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে। এ ঘটনায় একজনকে আটক করেছে পুলিশ। ক্রবার সকালে নারী নেত্রী সেলিনা বেগমের উপরে হামলার ঘটনায় আজ রবিবার পিরোজপুর আদালতে মামলা হয়েছে। সেলিনার স্বামী জাহিদ হাওলাদার বাদি হয়ে মামলা করেছেন। মামলার এজাহার থানায় পৌছেছে। এ মামলায় ইন্দুরকানী উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক মনিরুজ্জামান মৃধা ও তার ছেলে উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি এবং ইউপি সদস্য মাহামুদুর রহমান সোহেলকে আসামী করা হয়েছে। ঘটনার সাথে সম্পৃক্ত থাকার অভিযোগে চরনি পত্তাশী গ্রামের ফজলুল ফকিরের ছেলে লোকমান ফকিরকে (৫০) আটক করা হয়েছে বলে জানান, ইন্দুরকানী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ হাবিবুর রহমান।

ইন্দুরকানী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ হাবিবুর রহমান আরো জানান, সেলিনার উপর হামলার ঘটনায় উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদকসহ ১৪ জনের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে। আমরা একজনকে আটক করেছি। অন্যদের গ্রেফতারের জন্য অভিযান চলছে।

উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক মনিরুজ্জামান মৃধা জানান, আমি বেশ কিছু দিন ধরে ঢাকায় আছি। আমার ছেলে সোহেল বাড়িতে অসুস্থ। আমরা কেউ এই ঘটনার সাথে আদৌ জড়িত নই।

উল্লেখ্য শুক্রবার সকালে উপজেলার চরনি পত্তাশী গ্রামে জমি জমা সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষরা হামলা চালিয়ে মহিলা লীগ নেত্রী সেলিনা বেগমের (৩৮) দুই পা পিটিয়ে ভেঙ্গে দেয়।

বিভাগ: অন্যান্য,জাতীয়,টপ নিউজ,ফিচার,বরিশাল বিভাগ,ব্রেকিং নিউজ,রাজনীতি,সারাদেশ